করোনাযুদ্ধে এবার এগিয়ে এলো বইপাড়া!

প্রকাশিত: ৬:৪৯ অপরাহ্ণ, জুন ১৬, ২০২০

করোনাযুদ্ধে এবার এগিয়ে এলো বইপাড়া!

বেগম, বিজ্ঞান বিনোদন।বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে মানবতার ডাকে এগিয়ে এসেছেন বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় লেখক, কবি ও কথাসাহিত্যিক। বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গের সর্বমোট ৮৩ জন প্রতিভাবান লেখকের লেখা নিয়ে প্রকাশিত হয়েছে ডিজিটাল ম্যাগাজিন ‘অত্রিক – ইদ সংখ্যা’। সর্বনিম্ন ৫০ টাকা অনুদানের মাধ্যমে যে কেউ সহজেই সংগ্রহ করতে পারবে এই ডিজিটাল ম্যাগাজিন। আর এই অনুদানের সমস্ত ব্যয় হবে কোভিড ১৯ এর কারণে ক্ষতিগ্রস্থদের সেবায়।

ইতোমধ্যে বইপাড়ার অনলাইন জগৎসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে সাড়া ফেলা এই ম্যাগাজিনে লিখেছেন হালের জনপ্রিয় লেখক সাদাত হোসাইন, শরীফুল হাসান, ওবায়েদ হক, নাজিম উদ দৌলা, জয়নাল আবেদীন, মাহরীন ফেরদৌস, মুশফিকুর রহমান আশিক, ইশতিয়াক আহমেদ, মোজাম্মেল হোসেন ত্বোহা, সৈয়দ নাজমুস সাকিব প্রমুখ। এছাড়াও ওপার বাংলা থেকে লিখেছেন জনপ্রিয় লেখক দেবতোষ দাশ, নির্মাল্য সেনগুপ্ত, ইউটিউবার কিরণ দত্ত সহ আরো অনেকে।

করোনায় ক্ষতিগ্রস্থদের সাহায়তার লক্ষ্যে তৈরী ম্যাগাজিনটির মূল উদ্যোক্তা হচ্ছেন বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় রম্য লেখক সোহাইল রহমান ও অনলাইন লেখক হাফিজুর রহমান রিক। ম্যাগাজিনটির সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন ভূমি প্রকাশের প্রকাশক জাকির হোসেন ও সতীর্থ প্রকাশনার প্রকাশক তাহমিদ রহমান। হঠাৎ এই উদ্যোগের কারণ জানতে চাইলে ম্যাগাজিনটির উদ্যোক্তা সোহাইল রহমান বলেন, ‘সব শ্রেণী পেশার মানুষই করোনায় ক্ষতিগ্রস্থদের জন্য কিছু না কিছু করার চেষ্টা করছে। তাহলে বইপাড়া কেন পিছিয়ে থাকবে? আমরা তো ক্ষতিগ্রস্থদের পাশে দাঁড়াতে পারি আমাদের লেখা দিয়েই। সেই চিন্তা থেকেই অনলাইন ম্যাগাজিন ‘অত্রিক – ইদ সংখ্যা’ প্রকাশের উদ্যোগ নেওয়া।’

অত্রিক ম্যাগাজিনটির অনলাইন বিপণন ও ফান্ড কালেকশনে দিনরাত কাজ করছে লাইটার ইয়ুথ ফাউন্ডেশন। দেশ ও বিদেশের যে কোনো প্রান্ত থেকে সর্বনিম্ন ৫০টাকা কিংবা এর চেয়ে বেশি পরিমাণ অনুদানের মাধ্যমে যে কেউ লাইটার ইয়ুথ ফাউন্ডেশনের ওয়েবসাইট ও ফেসবুক পেইজ থেকে সংগ্রহ করতে পারবে ম্যাগাজিনটির পিডিএফ ভার্সন। অনুদানের জন্য আসা যাবতীয় অর্থ সরাসরি জমা হচ্ছে লাইটারের ‘মিশন করোনা: বেঁচে থাকার লড়াই’ নামক ইভেন্টের ফান্ডে।

এ ব্যাপারে লাইটার ইয়ুথ ফাউন্ডেশনের পরিচালক মুক্তার ইবনে রফিক জানান, “অত্রিক ম্যাগাজিন নিয়ে কাজ করতে পেরে আমরা সত্যিই আনন্দিত। দেশের যেকোন দুর্যোগে দূর্গম ও প্রত্যন্ত অঞ্চলে আমরা ছুটে গেছি দুস্থ মানুষের সেবায়। আমরা সব সময়ে চেষ্টা করে থাকি নিজেদের সর্বোচ্চটা দিয়ে মানুষের পাশে দাঁড়াতে। অত্রিক থেকে আসা অনুদান আমরা পরিপূর্ণভাবে উপযুক্ত স্থানে ব্যয় করব। সেই সাথে স্বচ্ছ জবাবদিহিতায় আমরা বদ্ধ পরিকর।”

প্রথম দুই দিনেই ম্যাগাজিনটির প্রায় এক হাজার অনলাইন কপি বিক্রি বাবদ সংগ্রহ হয়েছে ৭৩,৩১৭ টাকা; যা বাংলাদেশের বইপাড়ার ইতিহাসে বিরল। এ ব্যাপারে ম্যাগাজিনের আরেক উদ্যোক্তা হাফিজুর রহমান রিক জানান, “এই ম্যাগাজিনের মাধ্যমে আমরা সর্বোচ্চ চেষ্টা করছি ক্ষতিগ্রস্থদের পাশে দাঁড়ানোর। আমরা আশাবাদী সকল শ্রেণী পেশার মানুষ আমাদের এই উদ্যোগে সানন্দে এগিয়ে আসবেন এবং অংশগ্রহণ করে আমাদের প্রচেষ্টাকে সফল করবেন। ইতোমধ্যে অত্রিক ম্যাগাজিনের চাহিদার পরিমাণ দেখে আমরা অভিভূত। তবে এখনও অনেক দূরের পথ পাড়ি দেয়া বাকি।”

খুব শিগগিরই ম্যাগাজিন থেকে প্রাপ্ত অনুদান দিয়ে প্রথম ধাপে আগামী বান্দরবন জেলার লামার গজারিয়া ইউনিয়ন এর মুরং সম্প্রদায়ের ৫৪ টি পরিবারের মাঝে উপহার সামগ্রী বিতরণ করা হবে। অত্রিক ম্যাগাজিন সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে ২৪/৭ খোলা রাখা হয়েছে লাইটার ইয়োথ ফাউন্ডেশনের ওয়েবসাইট ও ফেসবুকে পেইজ।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

আর্কাইভ

October 2020
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031