বিবিসির সেরা ১০০ নারী ২০২০: তালিকায় দুই বাংলাদেশি নারী

প্রকাশিত: ১০:১৭ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ২৪, ২০২০

বিবিসির সেরা ১০০ নারী ২০২০: তালিকায় দুই বাংলাদেশি নারী

বেগম, বিবিসি।এ বছরে বিশ্বে আলোচনার কেন্দ্রে থাকা যে ১০০ নারীর তালিকা তৈরি করেছে বিবিসি – তাতে স্থান পেয়েছেন বাংলাদেশের রিনা আখতার ও রিমা সুলতানা রিমু।

এবছর বৈশ্বিক মহামারি পরিস্থিতিতে যেসব নারী তাদের কাজ ও উদ্যোগ দিয়ে যার যার ক্ষেত্রে ইতিবাচক পরিবর্তন নিয়ে এসেছেন, সেসমস্ত নারীদের নিয়ে ২০২০ সালের এই তালিকা তৈরি করা হয়েছে।

এতে জায়গা করে নিয়েছেন ফিনল্যান্ডে নারীদের নিয়ে গঠিন জোট সরকারের প্রধান সানা মারিন, অভিনেত্রী মিশেল ইয়ো এবং করোনাভাইরাসের টিকা আবিষ্কারে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষণায় নেতৃত্ব দেয়া সারা গিলবার্ট।

আর ২০২০ সাল একটা বিশেষ বছর। এই কঠিন সময়ে বিশ্বের সব জায়গায় সমস্ত নারীই কোথাও না কোথাও কারও জন্য কাজ করছেন। নাম না জানা সে সমস্ত নারীর প্রতি সম্মান জানিয়ে এই ১০০ জনের তালিকায় প্রথম স্থানটি খালি রাখা হয়েছে।

এই তালিকায় আছেন বাংলাদেশের প্রাক্তন এক যৌন কর্মী রিনা আক্তার। করোনা মহামারির সময়ে বাংলাদেশের ঢাকায় যৌনপল্লীগুলোতে অবস্থিত নারী যৌনকর্মীরা ছিলেন অনাহারে। রোজগার বন্ধ ছিল, আবার সমাজের ‘অন্ধকার’ জগতের বাসিন্দা হওয়ায় আড়ালে থেকে গেছিলেন এই যৌনকর্মীরা। আর এই সময় তাদের জন্য এগিয়ে আসেন রিনা আক্তার। ভাত, সবজি, মাংস দিয়ে ১ সপ্তাহে প্রায় ৪০০ যৌনকর্মীকে খাবার দিয়েছেন এই নারী।

রিনা আক্তার

রিনা বলেন, ‘মানুষ আমাদের নিচু মনে করে, খারাপ মনে করে। কিন্তু আমরা শুধুমাত্র খাবারের জন্য এই কাজ করি। এই মহামারিতে এই নারীরা যেন অনাহারে না থাকে আমি শুধু সেই চেষ্টাই করছি। আমি চাই এই নারীদের সন্তানদের যেন এই পেশায় আসতে না হয়।’

এই তালিকায় আরও আছেন রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর শিক্ষক রিমা সুলতানা রিমু। বাংলাদেশের কক্সবাজারে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ইয়াং ওম্যান লিডার্স ফর পিস প্রোগ্রামের সদস্য তিনি। বিশ্বের সংঘর্ষপীড়িত অঞ্চলগুলোতে নারীদের নেতৃত্বের কাতারে নিয়ে আসতে এই প্রোগ্রাম কাজ করে।

রোহিঙ্গা শরণার্থীদের মাঝে লিঙ্গ সমতা আনতে বিভিন্ন ধরনের কাজ করেছেন রিমু। লিঙ্গ সমতা সম্পর্কে বয়স-উপযোগী করে ক্লাসের আয়োজন করেছেন তিনি। বিশেষ করে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠির ওইসমস্ত নারী ও মেয়েদের জন্য যারা প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা পায়নি কখনো।

রিমা সুলতানা রিমু

এছাড়াও নারী, শান্তি ও  নিরাপত্তা সম্পর্কে জাতিসংঘের নীতিমালাগুলো সম্পর্কে তার জনগোষ্ঠীর মানুষদের জানাতে কাজ করেছেন তিনি।

রিমু বলেন, ‘বাংলাদেশে লিঙ্গ সমতা আনতে আমি বদ্ধ-পরিকর। আমি বিশ্বাস করি নারীরা তাদের লড়াউ নিজেরাই করতে পারবে। আমাদের সাফল্য আসবেই।’

এই তালিকায় ভারতের ৪ নারী স্থান করে নিয়েছেন। সর্বজ্যেষ্ঠ্য বিলকিস বানু, ৮২ বছর বয়সের এই নারী ভারতের বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধন আইনের বিরুদ্ধে আন্দোলন করেন।

আরও আছেন সংগীতশিল্পী ঈসাইবাণী, ক্রীড়াবিদ মানসী যোশী, পরিবেশবাদী রিদিমা পান্ডে।

পাকিস্তান থেকে এবারের এই সেরা ১০০ নারীর তালিকায় আছেন অভিনেত্রী মাহিরা খান ও বিশ্ব স্বাস্থ্য খাতের একজন অগ্রদূত ডাক্তার সানিয়া নিশতার।